এবার কোন ভাবেই আত্মহত্যার চেষ্টা চালালে কারাদণ্ড বা জরিমানা

0
240

রোজেলিনের সঙ্গে যাদের প্রথম দেখা হবে, তিন সন্তানের এই মাকে মনে হবে খুবই হাসিখুশি একজন। কিন্তু কেউ যেটি জানে না, তা হলো বেশ কয়েকবার তিনি নিজের জীবন নেয়ার চেষ্টা করেছিলেন। অনেক বছর ধরে তিনি ঘনিষ্ঠ সবার কাছ থেকে এই গোপন তথ্য লুকিয়ে রেখেছেন, এমনকি তার কিশোর সন্তানদের কাছ থেকেও।

কেনিয়ার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, দেশটিতে প্রতিদিন অন্তত ৪জন আত্মহত্যা করছে। তা সত্ত্বেও বিষয়টিকে এখনো লজ্জার একটি বিষয় বলে মনে করা হয়, ফলে এই ঝুঁকিতে থাকা মানুষজনকে যথাযথ সেবাও দেয়া সম্ভব হয় না। এ ধরণের চেষ্টা যারা করে, উল্টো আইন করে তাদের শাস্তি দেয়া হয়। সেখানে একজন নারী বিবিসির কাছে তুলে ধরেছেন কিভাবে সেই অন্ধকার বিপদ তিনি কাটিয়ে উঠেছিলেন।

রোজেলিন বলছেন, ‘চরম বিষণ্ণতার কারণে ৪বার আমি আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিলাম। বাইপোলার নামের এই রোগের এটি ছিল অন্যতম একটি চ্যালেঞ্জ। প্রথমদিকে এসব নিয়ে কারো সাথে কথা বলতে আমি লজ্জা পেতাম, …মানুষজন আমাকে দেখতে হাসপাতালে আসতো। তারা নিশ্চয়ই দুইয়ের সঙ্গে দুই মিলিয়ে নিতো যে, আমি নিশ্চয়ই কোন ওভার ডোজ নিয়েছি। কিন্তু তারা আমার সামনে এসব নিয়ে কথা বলতো না। আমরা সবকিছু নিয়েই কথা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here