গোপালগঞ্জে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে আহত ২৫

0
152
গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি :গোপালগঞ্জ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে শিক্ষার্থী ও বহিরাগতদের মধ্যে সংঘর্ষে কমপক্ষে ২৫ শিক্ষার্থী আহত হয়েছে। এসময় দুইটি মটর সাইকেল, ১৫টি দোকানে অগ্নি সংযোগসহ ২৫টি দোকানে ভাংচুর করা হয়।
এদিকে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে কয়েক রাউন্ড রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পুলিশ। বুধবার সন্ধ্যা ৭টা থে‌কে রাত ১০টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ও আশপাশের এলাকায় থেকে থেমে এ সংঘর্ষ চলে।
স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, বুধবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ছাত্র ও বহিরাগত গোবরা গ্রামের যুবকরা ফুটবল খেলছিলো। খেলার এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এর জের ধরে ক্যাম্পাসের পুকুরে গোসল করতে গিয়ে স্থানীয় বহিরাগতরা কয়েকজন ছাত্রকে মারপিট করে।
এখবর বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ছড়িয়ে পড়লে শিক্ষার্থীরা একত্রিত হয়ে ক্যাম্পাসের বাহিরে কয়েকটি দোকানে হামলা চালিয়ে ও ভাংচুর করে। এসময় স্থানীয় গোবরা গ্রামের লোকজন বিশ্ববিদ্যালয়ে মেইন ফটকে অবস্থান নিলে সন্ধ্যা ৭টা থেকে রাত ১০ টা পর্যন্ত থেমে থেমে উভয় গ্রুপের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। এতে কমপক্ষে ২৫জন আহত হন।
পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনের একটি মার্কেটে আগুন ধরিয়ে দিলে ১৫টি দোকান পুড়ে যায়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে। মারাত্মক আহত ১৫ জনকে গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানিয়েছেন, তারা বেশ কয়েক রাউন্ড গুলির শব্দ শুনেছেন।
গোপালগঞ্জ সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ মনিরুল ইসলাম রাবার বুলেট নিক্ষেপের কথা অস্বীকার করে বলেছেন, পরিস্থিতি এখন শান্ত। ফায়ার সার্ভিস আগুন নিয়ন্ত্রণে এনেছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here