বানিয়াচংয়ে সন্ধ্যা নামলেই ঘটছে ছিনতাইয়ের ঘটনা

0
130
নিরঞ্জন গোস্বামী শুভ, হবিগঞ্জ ॥ হবিগঞ্জের বানিয়াচংয়ে সন্ধ্যা নামলেই দেখা দেয় ছিনতাই আতঙ্ক। রাতের ফাঁকা রাস্তায় মোটরসাইকেল, রিকশা আরোহী কিংবা পথচারীদের দামি মোবাইলসহ মালামাল ছিনতাই করে পালিয়ে যাচ্ছে ছিনতাইকারীরা। বানিয়াচং সদরের গুরুত্বপুর্ণ রাস্তা থেকে শুরু করে ভুতুরে অলি গলি সবখানেই দাপট ছিনতাইকারীদের। এমনকি বাড়ির সামনের রাস্তায়া অস্ত্র ঠেকিয়ে ছিনতাই করছে উঠতি বয়সী বখাটে ছিনতাইকারীরা। সম্প্রতি বানিয়াচং উপজেলার বিভিন্নস্থানে ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে।

গত বুধবার রাত ৯টার দিকে বানিয়াচং সদরের গরীব হোসেন মহল্লার চনু মিয়ার ছেলে সাদি আহমেদ ছিনতাইকারীদের কবলে পড়েন। এ বিষয়ে সে জানায়, তার বাড়ির পাশে ফাকা রাস্তায় দাঁড়িয়ে মোবাইলে কথা বলছিল। এসময় অকস্মিক একটি মোটরসাইকেলে করে তিনজন মুখোঁশধারী লোক এসে তার সামনে থামায়। এসময় ধাঁরালো অস্ত্র দেখিয়ে তার হাতে থাকা একটি মোবাইলফোন ও টাকা পয়সা কেড়ে নিয়ে চলে যায়।

এদিকে, সম্প্রতি ইনাতখানি মহল্লার রাস্তায় রাত ৮টার দিকে ঠিক একইভাবে ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে। ধারালো অস্ত্র ঠেকিয়ে এক যুবকের কাছ নগদ টাকা ও মোবাইলফোন ছিনিয়ে নেয় ছিনতাইকারীরা। এর কিছুদিন পূর্বে একই রাস্তায় দিনে-দুপুরে দেশমূখ্যপাড়ার ঝরনা আক্তার নামে এক মহিলার ব্যাগ ছিনতাই করে নিয়ে যায়। এ সময়, ঝরনা আক্তারের ব্যাগে ৫০ হাজার টাকা ছিল। তিনি ব্যাংক থেকে টাকা তুলে বাড়ি ফিরছিলেন।

বানিয়াচং প্রেসকাব সেক্রেটারি তোফায়েল রেজা সোহেল জানান, আইনের কঠোর প্রয়োগ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সক্রিয়া ভুমিকা ছাড়া ছিনতাইকারীদের দৌরাত্ব বন্ধ করা সম্ভব হবেনা। ছিনতাইয়ের লাগাম টানতে আধুনিক প্রযুক্তির সর্বোচ্চ ব্যবহার জরুরি। পাশাপাশি অপরাধীদের শাস্তির ব্যাপারটি নিশ্চিত করতে হবে। আমরা আশা করব পুলিশ প্রশাসন নীতিনির্ধারক মহল এইদিকে বিশেষ নজর দিবেন।

বানিয়াচং থানার ওসি মোজাম্মেল হক বলেন, ছিনতাইয়ের কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। তবে ছিনতাইকারীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করলে অবশ্যই কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here