মেয়েদের স্ত’নের হারানো সৌন্দর্য ফিরিয়ে আনার সহজ ৫টি উপায়

0
604

বহু মহিলার মধ্যে দেখা যায় এমন একটি সাধারণ সমস্যা হল স্তনের আকৃতি নষ্ট হয়ে যাওয়া বা স্তন ঝুলে যাওয়া। বয়স, ওজন, অসুখ, যত্নের অভাব, বাজে লাইফস্টাইল-সহ নানা কারণেই স্তনের আকৃতি ও সৌন্দর্য নষ্ট হয়ে যায়। এবং বহু মহিলা শুধু এই কারণেই হীনমন্যতায় ভুগতে থাকেন, অনেকের দাম্পত্য জীবনেও দেখা দেয় সমস্যা। এই সমস্ত সমস্যা থেকে আপনাকে মুক্তি দেবে এই ৫টি উপায়। স্তনের সৌন্দর্য বা শেপ নষ্ট হয়ে গেছে? এই ৫টি কৌশল আপনাকে ফিরিয়ে দেবে আপনার হারিয়ে ফেলা সৌন্দর্য। আবার নিয়মমেনে চললে স্তনের শেপ নষ্ট হওয়াও প্রতিরোধ করবে।

অ্যালোভেরা জাদুকাঠি

অ্যালোভেরা আপনার ত্বক টান টান করে স্তনকে আবার উন্নত করে তুলতে খুবই কার্যকর। এর অ্যান্টি অক্সিডেনট উপাদান আপনার স্তনকে অন্দর থেকে সুন্দর করে তোলে। অ্যালোভেরা থেকে ভেতরের জেল জাতীয় উপাদান বের করে নিন। এই জেল স্তনে ম্যাসাজ করে করে মাখুন ১০ মিনিট। এরপর আরও ১০ মিনিট স্তনে এই জেল রাখুন। তারপর ঠাণ্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ৪ থেকে ৫ বার করুন কাঙ্ক্ষিত ফল পেতে।

ওজনের বাড়িয়ে ফেলবেন না হঠাৎ

যাদের ওজন খুব বেশি ওঠা-নামা করে, তাঁদের স্তন খুবই দ্রুত শেপ হারিয়ে ফেলে। ওজনের খুব বেশি ওঠানামা হতে দেবেন না। ওজন কমিয়ে একদম স্লিম হয়ে গেলেন, তারপর আবার ওজন বেড়ে গেলে আগের মত, এমন ঘটতে থাকলে বয়সের অনেক আগেই স্তন ঝুলে যাবে। আপনি মোটা বা রোগা-তার চেয়ে জরুরি নিজের একটা নির্দিষ্ট ওজন ধরে রাখা। তাতেই বক্ষযুগল থাকবে উন্নত।

প্রচুর জল খান

শুধু স্তনের নয়, আপনার মুখেও বয়সের ছাপ প্রতিরোধ করতে বেশি করে জল খাওয়াটা অত্যন্ত জরুরি। দেহের কোশের বেশিরভাগটাই জল। তাই শরীরে যখন জলের অভাব দেখা দেয়, খুব স্বাভাবিকভাবে তখন ত্বকে বয়সের ছাপ পড়ে যায়। চামড়া ঝুলে যেতে থাকে, ত্বকে বয়সের ছাপ পড়ে, সম্পূর্ণ ত্বকই মলিন-বিবর্ণ আর কুঁচকানো দেখায়। আর সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয় আপনার মুখ ও স্তন।

বেদানা

বেদানা জাতীয় ফল স্তন থেকে বয়সের ছাপ দূর করতে দারুণ কার্যকর। পারলে প্রতিদিন পান করুন বেদানার রস। এদের বীজ থেকে যে তেল তৈরি হয়, সেটাও স্তনের আকৃতি আবারও সুন্দর করে তুলতে খুবই কার্যকর।

পালটে ফেলুন ডায়েট চার্ট

দ্রুত ওজন কমিয়ে ফেললে যেমন স্তনের শেপ নষ্ট হয়ে স্তন ঝুলে যায়, তেমনই কিছু বিশেষ খাবার অর্থাৎ পর্যাপ্ত পুষ্টির অভাবে স্তন ঝুলে যেতে পারে। প্রতিদিন অল্প কিছু ব্যায়াম করার পাশাপাশি অবশ্যই একটি ব্যালান্সড ডায়েট মেনে চলবেন। নিজের খাদ্য তালিকায় প্রতিদিন রাখবেন নির্দিষ্ট পরিমাণে চর্বিহীন প্রোটিন, ভিটামিন ও মিনারেলস সমৃদ্ধ শাকসবজি, অল্প কার্বোহাইড্রেট ইত্যাদি। আরও কিছু খাবার আছে, যেগুলো প্রতিদিন খাবেন। যেমন- টমেটো, পেঁয়াজ, গাজর, ব্রকলি, ফুলকপি, বাঁধাকপি, রসুন ইত্যাদি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here