ইরাকের কারবালায় আশুরা অনুষ্ঠানে নিহত ৩১

0
14

ইরাকের কারবালায় পবিত্র আশুরা অনুষ্ঠানে হুড়োহুড়িতে পদদলিত হয়ে ৩১ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরও শতাধিক মানুষ আহত হয়েছেন।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ১৭ জন নিহত ও ৭৫ জন আহত হওয়ার কথা বলা হলেও বেসামরিক সূত্রে ৩১ জনের মৃত্যুর কথা জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

বার্তা সংস্থা এএফপি বলছে, ইরাকের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাইফ আল বদর বলেছেন, নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে। আশুরা পালনকালে এটিই সাম্প্রতিক ইতিহাসে পদপিষ্ট হয়ে মারা যাওয়ার সবচেয়ে ভয়াবহ ঘটনা। এদিন সারাবিশে^র শিয়া সম্প্রদায়ের অসংখ্য মানুষ সমবেত হন ঐতিহাসিক কারবালা ময়দানে। মঙ্গলবার এসব মানুষে সয়লাব ছিল কারবালা। কালো পোশাকে তারা কারবালায় হযরত হোসেন (রা.)-এর স্বর্ণে মোড়ানো সমাধিতে সমবেত হন। এ সময় তাদের হাতে ছিল কালো পতাকা। তাতে লাল কালিতে লেখা ছিল ‘হোসেন’। একই রকম কর্মসূচি পালিত হয় ইরাকের রাজধানী বাগদাদ, দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর নাজাফ ও বসরায়।

ইরাকের প্রয়াত প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের সময় আশুরার এই রকম সমাবেশ নিষিদ্ধ ছিল। কিন্তু এখন এ দিনটি জাতীয় ছুটি। পুরো রাস্তা, পথঘাট শোকের আবহে ভরে যায়। এর মধ্য দিয়ে কারবালার সেই যুদ্ধকে ফুটিয়ে তোলা হয়। জানানো হয় শোক। ২০০৫ সালে বাগদাদে অন্য একটি ছুটির দিনে ইমাম কাদিম সমাধিতে সমবেত হয়েছিলেন বিপুল সংখ্যক ভক্ত। ওই সময় গুজব ছড়িয়ে পড়ে আত্মঘাতী বোমা হামলাকারী রয়েছে সেখানে। এ ঘটনায় হুড়োহুড়ি করতে গিয়ে পদদলিত হয়ে মারা যান কমপক্ষে ৯৬৫ জন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here