নারায়ণগঞ্জে বিস্ফোরক উদ্ধার, জেএমবি সদস্য রুমি আটক

0
20

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার তক্কার মাঠ এলাকায় পরিচালিত অভিযানে বিস্ফোরণ ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধার করেছে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিট। এর আগে জয়নাল আবেদীনের দু’ছেলেসহ তিনজনকে আটক করা হয়। আজ (২৩ সেপ্টেম্বর) সকাল থেকেই ফতুল্লার তক্কার মাঠ এলাকায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে একটি বাড়ি ঘিরে রাখে পুলিশ। পরে সে এলাকার আরো ১৭টি বাড়িতে তল্লাশি চালায় পুলিশ। অভিযানে পুলিশের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট ও কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট ছাড়াও বিভিন্ন ইউনিট যোগ দেয়।

জঙ্গি সন্দেহে আটক রুমি মূলত নব্য জেএমবির সদস্য। তিনি আহছানউল্লা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের যন্ত্রকৌশল বিভাগের শিক্ষক। সম্প্রতি ঢাকার পাঁচটি হামলা ও হামলাচেষ্টার সঙ্গে তাদের যোগসূত্র রয়েছে বলে জানা গেছে।

পুলিশ গণমাধ্যমকে জানায়, বাড়িটি থেকে জঙ্গি সন্দেহে আটক রুমি ঢাকার সাম্প্রতিক পাঁচটি হামলা ও হামলাচেষ্টার সঙ্গে যোগসূত্র রয়েছে। এ ঘটনায় আরো দুজন আটক হলেও তাদের জঙ্গি সংশ্লিষ্টতার বিষয়ে বিস্তারিত জানা যায়নি।

পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম গণমাধ্যমকর্মীদের এসব তথ্য জানিয়ে বলেছেন, বাড়িটিতে বিস্ফোরণ ও বোমা তৈরির কিছু সরঞ্জাম রয়েছে যা বিগত সময়ে ঢাকায় জঙ্গিদের থেকে উদ্ধার করা সামগ্রীর সঙ্গে মিল রয়েছে।

তিনি বলেন, প্রথমে যে বাড়িটি সন্দেহ করা হয়েছিল মূলত এ বাড়িতে তারা ছিল না। পাশের একটি বাসা থেকে রুমিকে আটক করা হয়েছে। এ সময় তার স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নেওয়া হয়েছে।

অভিযান শেষ হলে এসব বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানান মনিরুল।

উল্লেখ্য, আজ ভোর থেকেই বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক কর্মকর্তা জয়নাল আবেদীনের বাড়িটি ঘিরে রাখে পুলিশের সিটিটিসি ইউনিট। এসময় জয়নাল আবেদীনের দু’ছেলেসহ তিনজনকে আটক করা হয়। আটক তিনজন হলেন- আহছানউল্লা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের যন্ত্রকৌশল বিভাগের শিক্ষক ফরিদউদ্দিন রুমি (২৭), কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী জামালউদ্দিন রফিক (২৩) ও ফরিদউদ্দিনের স্ত্রী অগ্রণী ব্যাংকের কর্মকর্তা জান্নাতুল ফোয়ারা অনু (২৭)।

এরপর সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ফতুল্লার তক্কার মাঠ এলাকায় ওই বাড়িটিতে প্রবেশ করে বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের সদস্যরা। পরে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here