এইচএসসির ফল প্রস্তুত, মন্ত্রণালয়ের নির্দেশের অপেক্ষা

0
52

করোনাভাইরাসের কারণে এবার এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা হয়নি। ফলে শিক্ষার্থীদের স্বার্থে অটোপাসের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। গত ডিসেম্বরে অটোপাসের ফল প্রকাশের কথা থাকলেও অধ্যাদেশ জারি হতে দেরি হওয়ায় তা পিছিয়ে যায়। তবে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রস্তুত করেছে শিক্ষা বোর্ডগুলো। এখন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনার অপেক্ষায় আছে বোর্ড।

মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা পেলে বোর্ডগুলো আগামী বৃহস্পতিবার এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশ হতে পারে বলে জানা গেছে। এ সংক্রান্ত অধ্যাদেশ জারির পর আনুষ্ঠানিকভাবে ফল প্রকাশ করা হবে। গতকাল সোমবার এ বিষয়ে বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক কায়সার আহমেদ গণমাধ্যমকে বলেন, আমরা ফল প্রস্তুত করে রেখেছি। এখন আর তেমন কোনো জটিলতা নেই। মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনার অপেক্ষায় আছি। নির্দেশনা পেলেই ফল প্রকাশ করা হবে।

গত ২৯ ডিসেম্বর এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি জানিয়েছেন, বিশেষ পরিস্থিতিতে ফল প্রকাশ করতে গেলে আইনি প্রক্রিয়া হিসেবে রাষ্ট্রপতির অধ্যাদেশ জারি করতে হবে। অধ্যাদেশ জারির পর ফল প্রকাশ করা হবে। এর আগে গত ৭ অক্টোবর সরকার ঘোষণা দেয়, করোনার কারণে এ বছর উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষা হবে না।

এ ছাড়া বিভাগ ও বোর্ড পরিবর্তন, মানোন্নয়নসহ অন্যান্য বিষয়ে এ বিষয়ে করা পরামর্শক কমিটির সুপারিশে কাজটি হবে। ফল নিয়ে কেউ ক্ষুব্ধ হলে বোর্ডে আবেদন করতে পারবে। তবে শিক্ষামন্ত্রীর আশা, ফল নিয়ে কেউ সংক্ষুব্ধ হবে না। তার ভাষ্য, এবার তো সবাই পাস করবেন। এবার পরীক্ষা না হওয়ায় ফরম পূরণের সময়ে নেওয়া টাকার মধ্যে যে পরিমাণ টাকা ব্যয় হয়নি, সেই টাকা শিক্ষার্থীদের ফেরত দেওয়া হবে। ফল প্রকাশের পর সে বিষয়ে নির্দেশনা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে দেওয়া হবে। এবার এইচএসসি ও সমমানের মোট পরীক্ষার্থী ১৩ লাখ ৬৫ হাজার ৭৮৯ জন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here