সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩০ থেকে বাড়িয়ে ৩৫ করার সুপারিশ!

0
176

 

সোমবার জাতীয় সংসদ ভবনে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়-সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভায় এ সুপারিশ করা হয়। সংসদ সচিবালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো যায় যে,
সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স বাড়ানোর বিষয়ে সরকারের নীতিগত সিদ্ধান্ত পাওয়া যায়নি। এই প্রেক্ষাপটে চাকরিতে প্রবেশের বয়স বাড়িয়ে ৩৫ করা এবং অবসরের বয়স বাড়ানোর বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়কে কার্যক্রম গ্রহণের জন্য আবারও সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি।

বৈঠক সূত্র জানায়, বয়স বাড়ানোর বিষয়ে সরকারের নীতিগত সিদ্ধান্ত না পাওয়ায় মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ নিতে পারছে না। এই প্রেক্ষাপটে সংসদীয় কমিটি আবারও চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩০ থেকে বাড়িয়ে ৩৫ করার সুপারিশ করল।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, সম্প্রতি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩২ বছর করার উদ্যোগ নেয়। এ জন্য সারসংক্ষেপ চূড়ান্ত করা হয়েছে। তবে এটি এখনো প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন পায়নি। এটি প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন পেলে চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য মন্ত্রিসভায় উপস্থাপন করা হবে।

এর আগে গত জুনে সংসদীয় কমিটি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩৫ করার জন্য সুপারিশ করেছিল। বৈঠকের কার্যপত্র থেকে জানা যায়, আজকের বৈঠকে মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এই সুপারিশ বাস্তবায়নে পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহণের বিষয়টি সরকারি নীতিনির্ধারণী-সম্পর্কিত। এ বিষয়ে সরকারের নীতিগত সিদ্ধান্ত পাওয়া গেলে এ বিষয়ে পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহণ করা হবে।

গত জুনে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়-সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির ২৯তম সভায় সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩৫ বছর করার সুপারিশ করা হয়। এর আগে কমিটির ২১তম সভায় বয়স ৩২ বছর করার সুপারিশ করা হয়েছিল।

সংসদ সচিবালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, আজকের বৈঠকে ভূমি ব্যবস্থাপনা ও জমি ক্রয়-বিক্রয়সংক্রান্ত সরকারি নির্ধারিত ফি অনলাইনের মাধ্যমে জমা দেওয়া এবং জমি নিবন্ধনের ফিসহ অন্যান্য বিষয় স্বচ্ছ করার জন্য আইন বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয়কে সুপারিশ করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here